বান্ধবীর বিয়ে হওয়ায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে অপর বান্ধবীর আত্মহত্যা!

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে বান্ধবীর বিয়ে হওয়ায় ফেসবুকে স্টাটাস দিয়ে অপর বান্ধবীর আত্নহত্যার ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে নিজ ঘরের আড়ার সাথে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। আত্মহত্যা করেছেন সদকী ইউনিয়ন এর তারাপুর গ্রামের রাশিদুল মালিথার মেয়ে রিয়া খাতুন(১৭)। সে কুমারখালী আদর্শ মহিলা কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলো।

বান্ধবীর বিয়ে হওয়ায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে অপর বান্ধবীর আত্মহত্যা!

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে বান্ধবীর বিয়ে হওয়ায় ফেসবুকে স্টাটাস দিয়ে অপর বান্ধবীর আত্নহত্যার ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে নিজ ঘরের আড়ার সাথে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে।

আত্মহত্যা করেছেন সদকী ইউনিয়ন এর তারাপুর গ্রামের রাশিদুল মালিথার মেয়ে রিয়া খাতুন(১৭)। সে কুমারখালী আদর্শ মহিলা কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলো।

নিহতের ফুফু টুম্পা খাতুন জানান, তার ভাতিজি রিয়ার সাথে সহপাঠী নুসরাতের খুব ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক ছিলো। উভয় উভয়কে একদিন না দেখে থাকতে পারতোনা। দুই বান্ধবী ওয়াদাবদ্ধ ছিলো পড়ালেখা শেষ করে একসাথে বিয়ে করার। কিন্তু হটাৎই নুসরাতকে পারিবারিক ভাবে বিয়ে দেওয়া হয়। এবং বিয়ের পর নুসরাত বাবার বাড়িতে আসলে রিয়া তাকে স্বামী বাড়ি যেতে নিষেধ করে। নুসরাত তার অনুরোধ উপেক্ষা করে স্বামীর বাড়িতে যাওয়ায় মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে তারা পার্শ্ববর্তী ওয়াজ মাহফিল থেকে ফিরে এসে রিয়ার বসত ঘরে ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পান।

কুমারখালী থানার ওসি আকিবুল ইসলাম জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট আসার পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। এ ব্যাপারে কুমারখালী থানায় ইউডি মামলা হয়েছে।

What's Your Reaction?

like

dislike

love

funny

angry

sad

wow